/ / গুচ্ছ পদ্ধতিতে বিশ্ববিদ্যালয়ে ভর্তি ২০২১ সার্কুলার: আবেদন শুরু ১ এপ্রিল

গুচ্ছ পদ্ধতিতে বিশ্ববিদ্যালয়ে ভর্তি ২০২১ সার্কুলার: আবেদন শুরু ১ এপ্রিল

গুচ্ছ পদ্ধতিতে বিশ্ববিদ্যালয়ে ভর্তি ২০২১

গুচ্ছ পদ্ধতিতে বিশ্ববিদ্যালয়ে ভর্তি ২০২০-২০২১ শিক্ষাবর্ষের সার্কুলার: ২০ পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয়ে আবেদন ১ এপ্রিল থেকে, পরীক্ষা শুরু ১৯ জুন।

গুচ্ছ পদ্ধতিতে বিশ্ববিদ্যালয়ে ভর্তি সার্কুলার ২০২১: ভর্তির যোগ্যতা, পরীক্ষার নিয়মাবলী ও নম্বর বণ্টন

গুচ্ছ পদ্ধতিতে বাংলাদেশের ২০ সাধারণ ও বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের ভর্তি সার্কুলার (ভর্তির গাইডলাইন) প্রকাশ করা হয়েছে।

জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়ের সভাকক্ষে সংশ্লিষ্ট বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্যদের নিয়ে গঠিত কোর কমিটির সভায়, ভর্তি আবেদনের তারিখ ও পরীক্ষা সংক্রান্ত সিদ্ধান্ত গ্রহণ করা হয়।

সভায় সিদ্ধান্ত অনুযায়ী, ভর্তির প্রাথমিক আবেদন গ্রহণ করা হবে ১ এপ্রিল থেকে ১৫ এপ্রিল পর্যন্ত (প্রাথমিক আবেদন সময় বাড়ানো হয়েছে। নিচের অনুচ্ছেদে বিস্তারিত দেখুন)। আর চুড়ান্ত ভর্তি পরীক্ষা গ্রহণ শুরু হবে ১৯ জুন থেকে।

সর্বাত্মক লকডাউন চলার কারণে প্রাথমিক ভর্তি আবেদন লকডাইন শেষ হওয়ার পরবর্তী ১০ দিন পর্যন্ত করা যাবে। এছাড়া মানবিক ও বাণিজ্য বিভাগের ভর্তির শর্তও কিছুটা শিথিল করা হয়েছে। ১৫/০৪/২০২১ খ্রিষ্টাব্দ তারিখে আবেদনের সময় বাড়িয়ে, GST এর ভর্তি ওয়েবসাইটে এক বিজ্ঞপ্তি প্রকাশ করা হয়েছে।

সভায় বিশ্ববিদ্যালয়ে ভর্তির যোগ্যতা, সংশ্লিষ্ট পরীক্ষার মান বন্টন (নম্বর বন্টন) ও পরীক্ষার নিয়ম সম্পর্কে, বিস্তারিত আলোচনা শেষে সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়।

সতর্কতা: ভর্তি সংক্রান্ত প্রতিটি তথ্য খুবই গুরুত্বপূর্ণ। করোনার সময়ে সঠিক তথ্য পেতে প্রতিনিয়ত ভর্তির মূল ওয়েবসাইট ভিজিট করুন।

নিচের অনুচ্ছেদে ভর্তি সংক্রান্ত বিষয়াবলির বিস্তারিত তথ্য দেখুন। প্রয়োজনে নিচে সংযুক্ত ভর্তির নির্দেশিকা ভালোভাবে পড়ুন।

আরো পড়ুন:

জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয় ভর্তি ২০২১ (স্নাতক অনার্স ১ম বর্ষ) | NU Admission 2021

চবি ভর্তি পরীক্ষা তথ্য ২০২১ | admission.cu.ac.bd Chittagong University

বুয়েট ভর্তি পরীক্ষা ২০২১ এর বিজ্ঞপ্তি প্রকাশ: প্রাথমিক আবেদন ১৫ এপ্রিল

GST Abmission 2021: অনলাইনে ভর্তি আবেদন ও পরীক্ষার সংশোধিত সময়সূচী (তারিখ)

প্রাথমিক ভর্তি আবেদন শুরু ১/০৪/২০২০ খ্রিষ্টাব্দ তারিখ থেকে।

প্রাথমিক আবেদনের শেষ সময়: ১৫/০৪/২০২১ খ্রিষ্টাব্দ তারিখ অতিক্রান্ত হওয়ার পর, লকডাউনের কারণে সময় বর্ধিত করা হয়েছে।।

চলতি লকডাউন শেষ হলে, পরবর্তী ১০ দিন পর্যন্ত প্রাথমিক আবেদন করা যাবে। যদি লকডাউনের মেয়াদ না বাড়ে তাহলে, আগামী ২১ এপ্রিল সকাল ১০ টা থেকে নতুন করে আবেদনে আগ্রহীদের আবেদন গ্রহণ করা হবে।

আবেদনের পর নির্ধারিত পরিমান যোগ্য ভর্তিচ্ছু শিক্ষার্থীদের কাছে, মোবাইল এসএমএস এর মাধ্যমে তাদের ভর্তির প্রাথমিক ফলাফল জানিয়ে দেওয়া হবে।

প্রতিটি বিভাগে (মানবিক, বিজ্ঞান ও বাণিজ্য) দেড় লক্ষ শিক্ষার্থী ভর্তি পরীক্ষায় অংশ নিতে পারবে।

প্রাথমিক আবেদনের ফলাফল প্রকাশিত হবে ২৩/০৪/২০২১ খ্রিষ্টাব্দ তারিখে। (প্রাথমিক ফল ঘোষণার তারিখ নিয়ে অনিশ্চয়তা সৃষ্টি হয়েছে। ভর্তি আবেদনের সময়ের উপর প্রাথমিক ফলাফল নির্ভর করবে। তাই প্রাথমিক ফলাফল ঘোষণার তারিখ নিশ্চিতভাবে বলার এখনো সময় আসেনি)।

প্রাথমিক আবেদন পর নির্বাচিত শিক্ষার্থীদের ভর্তির চুড়ান্ত আবেদন শুরু হবে ২৪/০৪/২০২১ খ্রিষ্টাব্দ তারিখ থেকে।

চুড়ান্ত ভর্তি আবেদনের করা যাবে ২০/০৫/২০২১ খ্রিষ্টাব্দ তারিখ পর্যন্ত।

চুড়ান্ত নির্বাচিত ভর্তিচ্ছু শিক্ষার্থীদের ১ জুন থেকে ১০ জুন পর্যন্ত পরীক্ষার প্রবেশপত্র সংগ্রহ করতে হবে।

বিঃ দ্রঃ উপরোক্ত তারিখে বর্ণিত প্রাথমিক ফলাফল, চুড়ান্ত আবেদন ও প্রবেশপত্র সংগ্রহের তারিখ স্থগিত করা হয়েছে। নতুন তারিখ পরবর্তীতে জানানো হবে।

গুচ্ছে ২০ বিশ্ববিদ্যালয়ের চুড়ান্ত ভর্তি পরীক্ষার সময়সূচী

চুড়ান্ত ভাবে নির্বাচিত শিক্ষার্থীদের ভর্তির লিখিত পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হবে ১৯ জুন থেকে।

মানবিক বিভাগের পরীক্ষা ১৯ জুন ২০২১ খ্রিষ্টাব্দ তারিখে।

ব্যবসায় শিক্ষা বিভাগের পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হবে ২৬ জুন ২০২১ খ্রিষ্টাব্দ

আর সবশেষে বিজ্ঞান বিভাগের পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হবে ০৩ জুলাই ২০২১ খ্রিষ্টাব্দে।

দেশের সব পরীক্ষা কেন্দ্রে একযোগে দুপুর ১২:০০ টা থেকে ভর্তি পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হবে।

এখন পর্যন্ত চুড়ান্ত পরীক্ষার তারিখ পরিবর্তন করা হয় নি। তাই বলা যায় চুড়ান্ত পরীক্ষা নির্ধারিত সময়ের মধ্যে হবে।

গুচ্ছ পদ্ধতিতে ২০ বিশ্ববিদ্যালয়ে ভর্তি আবেদনের ওয়েবসাইট

নিচের ভর্তি বিষয়ক অফিশিয়াল ওয়েবসাইট থেকে ভর্তির যাবতীয় প্রক্রিয়া সম্পন্ন করা যাবে। অযথা হয়রানি ও ভুল তথ্য এড়াতে GST ওয়েবসাইট ব্রাউজ করে তথ্য জানুন।

https://gstadmission.ac.bd

উপরে সংযুক্ত ওয়েবসাইট হতে ভর্তি সম্পর্কীত যাবতীয় তথ্য পাওয়া যাবে। এখানে ভর্তির গাইডলাইন, অনলাইনে প্রাথমিক ভর্তি আবেদন, রেজাল্ট সহ ভর্তির যাবতীয় কার্যসম্পাদন করা যাবে।

সতর্ক হোন: উপরের জিএসটি আসল ওয়েবসাইট এড্রেস এর সাথে মিল রেখে, কিছু ভুয়া ওয়েবসাইট তৈরি করা হয়েছে। হয়রানি এড়াতে এসব ওয়েবসাইট থেকে সতর্ক থাকুন।

আরো জানুন:

চুয়েট রুয়েট কুয়েট ইঞ্জিনিয়ারিং ভর্তি ২০২১ | CUET RUET KUET Admission 2021

রাবি স্নাতক সম্মান ভর্তি ২০২১: পরীক্ষার আপডেট | admission.ru.ac.bd

পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয়ে গুচ্ছ পদ্ধতিতে বিশ্ববিদ্যালয়ে ভর্তি ২০২১ এর যোগ্যতা (সংশোধিত)

দেশের ২০ সাধারণ ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের ভর্তি আবেদনের ন্যূনতম যোগ্যতা নির্ধারণ করা হয়েছে। এসএসসি ও এইচএসসি (সমমান) পরীক্ষার মোট জিপিএ ধরে এই যোগ্যতা নির্ধারণ করা হয়েছে।

লক্ষ্য করুন– নতুন আবেদনে আগ্রহীদের ২১ এপ্রিল থেকে আবারো প্রাথমিক আবেদন গ্রহণ করা হবে। সাথে মানবিক ও বাণিজ্য বিভাগের ভর্তির ন্যূনতম যোগ্যতায় কিছুটা পরিবর্তিত হয়েছে। বিজ্ঞান বিভাগের আবেদনে কোন পরিবর্তন আনা হয়নি।

লকডাউন পরবর্তীতে নতুন যারা আবেদন করবেন, তাদের মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিকের মানবিকে মোট জিপিএ ৬.০০ পয়েন্ট এবং বাণিজ্যে মোট ৬.৩০ হলেও আবেদন করা যাবে।

২০১৬, ২০১৭ ও ২০১৮ সালের এসএসসি/সমমান পরীক্ষায় উত্তীর্ণ এবং ২০১৯ ও ২০২০ সালের এইচএসসি (সমমান) পরীক্ষায় উত্তীর্ণ শিক্ষার্থীরা কেবলমাত্র ভর্তির আবেদন করতে পারবে।

তবে আগামী বছর থেকে এই সুবিধা উঠিয়ে দেওয়া হবে বলে নিশ্চিত করা হয়েছে।

মানবিক বিভাগে ভর্তিতে জিপিএ ৬.০০ লাগবে। (সংশোধিত)

ব্যবসায় শিক্ষা বিভাগে আবেদন করতে প্রয়োজন হবে ৬.৫০ জিপিএ। (সংশোধিত)

তবে মানবিক ও বাণিজ্য বিভাগের শিক্ষার্থীদের কোন পরীক্ষায় জিপিও পয়েন্ট ৩.০০ এর নিচের থাকা চলবে না।

বিজ্ঞান শাখায় ভর্তির আবেদন করতে জিপিএ ৮.০০ থাকতে হবে।

বিজ্ঞান বিভাগের শিক্ষার্থীদের কোন পরীক্ষায় ন্যূনতম ৩.৫ এর নিচে জিপিএ থাকা চলবে না।

অনলাইনে ভর্তির প্রাথমিক ও চুড়ান্ত ভাবে নির্বাচিতদের আবেদনের ফি (সংশোধিত)

ভর্তির প্রাথমিক আবেদনের জন্য কোন ফি পরিশোধ করতে হবে না।

বিজ্ঞপ্তিতে চুড়ান্ত ভাবে নির্বাচিত শিক্ষার্থীদের পরীক্ষার ফি বাবদ ৫০০/= (পাঁচ শত) টাকা পরিশোধ করতে বলা হলেও, পরবর্তীতে এই ফি ১০০ টাকা বাড়ানো হয়েছে।

বর্তমান ঘোষণা অনুযায়ী ৬০০ টাকা পরিশোধ করে চুড়ান্ত নির্বাচিতদের আবেদন করতে হবে।

পরীক্ষা কেন্দ্র নির্বাচন ও আসন বিন্যাস

একজন শিক্ষার্থী কমপক্ষে ৫টি পরীক্ষা কেন্দ্র চয়েস দিতে পারবেন। তবে শিক্ষার্থী যে প্রতিষ্ঠান থেকে পাশ করেছে, সে প্রতিষ্ঠানকে চয়েস করতে পারবেন না। কর্তৃপক্ষের প্রয়োজনে শিক্ষার্থীদের চয়েসের বাহিরের কেন্দ্রে পরীক্ষা দিতে হতে পারে।

উল্লেখ্য যে, ২০১৯ সালের পাশ করা শিক্ষার্থীরা কেন্দ্র চয়েস দিতে পারবেন না। তাদের কর্তৃপক্ষের নির্বাচিত কেন্দ্রে পরীক্ষা দিতে হবে।

ভর্তি পরীক্ষার আসন বিন্যাস (সিট প্লান) পরবর্তী সময়ে জানানো হবে। (ভর্তি পরীক্ষার কেন্দ্রের তালিকা নিচের বিজ্ঞপ্তিতে দেখুন)।

ভর্তি পরীক্ষার মান বন্টন (নম্বর বন্টন)

মোট ১০০ নম্বরের ভর্তি পরীক্ষা নেওয়া হবে। পরীক্ষায় এমসিকিউ (MCQ) পদ্ধতিতে প্রশ্নপত্র প্রণয়ন করা হবে। প্রতিটি প্রশ্নের মান হবে ১ নম্বর করে।

প্রত্যেক বিভাগের শিক্ষার্থীদের জন্য বাংলা, ইংরেজী ও আইসিটি বিষয় আবশ্যিক ভাবে থাকবে। মানবিক বিভাগ বাদে অন্য সব বিভাগে, আবশ্যিক বিষয়ের সাথে সংশ্লিষ্ট বিভাগের বিষয়গুলোর মধ্য থেকে পরীক্ষা নেওয়া হবে।

(বিস্তারিত নম্বর বন্টন নিচের অনুচ্ছেদে যুক্ত ভর্তি নির্দেশীকায় দেখুন )।

গুচ্ছ পদ্ধতিতে বিশ্ববিদ্যালয়ে ভর্তি ২০২১ জন্য নির্বাচিত বিশ্ববিদ্যালয়ের তালিকা

বাংলাদেশের ৯ টি সাধারণ পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয় ও ১১টি বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ে গুচ্ছ পদ্ধতিতে ভর্তি পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হবে।

গুচ্ছ পদ্ধতিতে ভর্তির সাধারণ পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয়ের তালিকা

জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়

বরিশাল বিশ্ববিদ্যালয়

বেগম রোকেয়া বিশ্ববিদ্যালয়, রংপুর

শেখ হাসিনা বিশ্ববিদ্যালয়, নেত্রকোণা

জাতীয় কবি কাজী নজরুল ইসলাম বিশ্ববিদ্যালয়

রবীন্দ্র বিশ্ববিদ্যালয়

ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয়

খুলনা বিশ্ববিদ্যালয়

কুমিল্লা বিশ্ববিদ্যালয়

গুচ্ছে ভর্তির জন্য নির্ধারিত বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের তালিকা

হাজী মোহাম্মদ দানেশ বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়

শাহজালাল বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়

পটুয়াখালী বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়

মাওলানা ভাসানী বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়

বঙ্গমাতা শেখ ফজিলাতুন্নেছা মুজিব বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়

নোয়াখালী বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়

বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান ডিজিটাল বিশ্ববিদ্যালয়

যশোর বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়

রাঙামাটি বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়

পাবনা বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়

বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়

গুচ্ছ পদ্ধতিতে বিশ্ববিদ্যালয়ে ভর্তি ২০২১ সার্কুলার (ভর্তি বিজ্ঞপ্তি) দেখুন

(ভর্তি বিজ্ঞপ্তির প্রাথমিক আবেদনের শেষ সময় সহ কিছু তথ্য ইতোমধ্যে পরিবর্তিত হয়েছে। উপরের অনুচ্ছেদগুলোতে পরিবর্তনসমূহ দেখুন)

২০ বিশ্ববিদ্যালয়ে ভর্তি ভর্তি বিজ্ঞপ্তি ২০২১

২০ বিশ্ববিদ্যালয়ে ভর্তি সার্কুলার ২০২১

GST Admission Circular 2020-2021

গুচ্ছ পদ্ধতিতে বিশ্ববিদ্যালয়ে ভর্তি সার্কুলার ২০২১

২০২১ খ্রিষ্টাব্দে অনুষ্ঠিত গুচ্ছ পদ্ধতিতে বিশ্ববিদ্যালয়ে ভর্তি সংক্রান্ত হালনাগাদ তথ্য পেতে, এই প্রতিবেদনে যুক্ত থাকুন।

কোন বিষয়ে জানার থাকলে প্রশ্ন করতে পারেন। আর তথ্যগুলো অন্যকে জানাতে সামাজিক মাধ্যমে শেয়ার করুন।

আরো দেখুন:

ঢাবি স্নাতক ১ম বর্ষ (অনার্স) ভর্তি ২০২১ | DU Honours Admission 2021

এমবিবিএস মেডিকেল ভর্তি বিজ্ঞপ্তি ২০২১ | MBBS Admission 2021

বিডিএস ১ম বর্ষ ভর্তি ২০২১: ডেন্টাল ভর্তি আবেদন শুরু ২৭ মার্চ

তথ্যসূত্র:

GST Admission

সবশেষ আপডেট: ১৭/০৪/২০২১ খ্রিষ্টাব্দ তারিখ ১০:০৫ পূর্বাহ্ন।

Share This:

2 Comments

  1. গুচ্ছ ভর্তি পরীক্ষার কেন্দ্র কিভাবে নির্ধারিত হবে??
    আমি রাজশাহী বিভাগের মধ্যে আছি,,, রাজশাহী বিভাগ কি কেন্দ্র হিসেবে নির্বাচন করা যাবে??? please জানাবেন

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।